কাচির বদলে চুল কাটার জন্য ব্যবহৃত হচ্ছে বিভিন্ন ধারালো অস্ত্র

লাইফস্টাইল

মানুষ সাধারণত চুল কাটানোর জন্য নাপিতের কাছে যেতে হয়। আর এই নাপিতই নিজের হাতের জাদু দেখিয়ে মানুষকে একটি নতুন রুপ দেয়। মানুষের সুদর্শন লাগার পেছনে অনেকটা অবদানই এই নাপিতদের। এমনিতে তো সব নাপিতদের চুল কাটার পদ্ধতি একই রকম। কিন্ত পৃথিবীতে এমন কিছু নাপিত আছে যাদের চুল কাটার পদ্ধতি একদমই ভিন্ন।

 

ডেনিয়াল স্টোমেল: ডেনিয়াল রাশিয়ার একজন অধিবাসি। তার চুল কাটার স্টাইল দেখে যে কেউ প্রথম বারেই ভই পেয়ে যাবে কারণ সে মানুষের চুল কাটার জন্য কোনো কেচি ব্যবহার করেন না বরং তিনি চুল কাটার জন্য কুারাল ব্যবহার করেন। তিনি কুরাল দিয়ে চুর কাটায় অনেক দক্ষ হয়ে উঠেছেন।

আলবার্টো অলমেডো : আপনারা নিশ্চয় বিভিন্ন চাইনিজ মুভিতে তলোয়ার দিয়ে যুদ্ধ করতে দেখেছেন।কিন্তু আলবার্টো তার তলোয়ার দিয়ে মানুষের চুল কেটে থাকেন। আলবার্টো স্পেনের একজন বিখ্যাত নাপিত। তিনি কেচির সাথে সাথে তলোয়ার চালাতেও অনেক দক্ষ। তার এক ইন্টারভিউতে তিনি বলেন কেচি দিয়ে চুল কাটতে কাটতে বিরক্ত হয়ে গিয়েছিলেন তাই তিনি তলোয়ার দিয়ে মানুয়ের চুল কাটা শুরু করেছেন। তার এই নতুন স্টাইল তাকে শুধু স্পেনেই নয় পুরো বিশ্বেই বিক্ষাত করে দিয়েছেন। বেশিরভাগ মেয়েরেই তার কাছে চুল কাটাতে আসেন।

 

হেয়ার কাটিং উয়িত গ্রাইন্ডার: এমনিতে গ্রাইন্ডার এর কথা শুনলেই আমাদের মাথায় আসে লোহা কাটা যণ্ত্রের কথা। কিন্তু এক চাইনিজ নাপিত এটি দিয়ে মানুষের চুল কাটেন। তিনি এটি দিয়ে এত সুন্দর ভাবে চুল কাটেন যা দেখে যে কেউ তার প্রশংসা করতে বাধ্য হবে।

জিয়ান হুনকি: জিয়ান সবথেকে কম বয়সি চাইনিজ নাপিত এবং মেকাপ আর্টিস্ট। জিয়ানের বয়স মাত্র 6 বছর। জিয়ান তার বাবার কাছে থেকে ট্রেনিং নেয় এবং এখন সে অনেক জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন।

ফায়ার হেয়ার কাটিং: আগুন দিয়ে চুল কাটা এখন খুবই সাধারণ একটি বেপার। আগুন দিয়ে চুল কাটার জন্য নাপিত একটি লিকুইডের ব্যবহার করে এবং কাস্টমারের চুলে আগুন ধরিয়ে চুল কাটে। তদের মতে আগুন দিয়ে চুল কাটলে চুলে অসাধারণ চমক আসে এবং চুল খুব নরম হয়।

এনগুয়েন হোয়াং হুং: এই নাপিত তার কাস্টমারের চুল কোনো প্রকার কেচি ব্যবহার না করে শুধু মাত্র তলোয়ার দিয়ে কাটেন। তার এই তলোয়ার দিয়ে চুল কাটার ট্রেনিং নিতে প্রায় 4 বছর সময় লেগেছিল। তিনি তলোয়ার দিয়ে এতো দ্রুত চুল কাটেন যে তার চুল কাটা দেখে আপনার তাকে নাপিত কম নিনজা বেশি মনে হবে।

চেইনসো বারবেরে: এই নাপিত চুল কাটার জন্য কেচির পরিবর্তে চেইনসো ব্যবহার করেন। তার কাছে আসা কাস্টমারের দারি ও চুল তিনি এটি দিয়ে কেটে থাকেন। তিনি এভাবে চুল কাটাই এতটাই দক্ষ হয়ে গেছেন যে কাস্টমারের কোনো ক্ষতি হয় না। তার এই স্টাইলের কারণে তিনি পুরো বিশ্বে বিক্ষাত।

কাটিং উয়িত ক্লেভার অ্যান্ড হেমার : ইনি পাকিস্থানের লাহরের একজন নাপিত। এই নাপিত তার কাস্টমারের চুল চাপাতি এবং হাতুরের মাধ্যমে কেটে থাকেন। তার কাছে অনেক টুরিস্টও চুল কাটানোর জন্য যেয়ে থাকেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *